Thursday, April 21, 2016

মরগ্যানের পাখির চোখ ফেডারেশন কাপে

‘ইস্ট বেঙ্গল যথেষ্ট ভালো দল’

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: মরগ্যানের ছোঁয়ায় বদলে গিয়েছে ইস্ট বেঙ্গল? শেষ কথা বলবে ফলাফলই। কিন্তু মেহতাব-সৌমিকরা তাঁদের পুরানো কোচকে পেয়ে বেশ চাঙ্গা। দশটা-পাঁচটা সরকারি চাকরিকে হাতে রেখে ফুটবল কোচিং করানো নয়, একেবারে পেশাদারি কায়দায় অনেক ফুটবলারের আগে হাওড়া স্টেডিয়ামে অনুশীলনে পৌঁছে যাচ্ছেন ব্রিটিশ কোচ। গত দু’দিনের প্র্যাকটিসে মরগ্যানের কাজের প্রতি দায়বদ্ধতা দেখে একেবারেই অবাক নন মরগ্যানের চেনা লাল-হলুদে জনা কয়েক ফুটবলার। রফিকরা বলছেন, ‘কোচের ম্যান ম্যানেজমেন্টের সঙ্গে কারোর তুলনা হয় না। প্রথম দিন থেকেই কোচ বন্ধুর মতো মিশে গিয়েছেন আমাদের সঙ্গে।’ 


ফুটবলারদের লক্ষ্য ঠিক করে দিয়েছেন মরগ্যান। এক, রবিবার আই লিগের শেষ ম্যাচে লাজংকে হারাতেই হবে। কোনও অঙ্কের দিকে তাকানোর প্রয়োজন নেই। দুই, ফেডারেশন কাপে ভালো ফল করতে হবে। গত দু’দিনের মতো বুধবার সকালেও হাওড়া স্টেডিয়ামে অনুশীলনে ফুটবলারদের শারীরিক ও মানসিকভাবে চাঙ্গা করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন মরগ্যান। বিদেশি কোচ বলেন, ‘আই লিগে আর চ্যাম্পিয়ন হওয়ার আশা নেই। ফলে দু’নম্বর হওয়ার দিকে তাকিয়ে থাকতে হবে। আমি ফুটবলারদের বলেছি, শনিবার মোহন বাগান ও বেঙ্গালুরু এফ সি ম্যাচের রেজাল্ট যাই হোক না কেন, রবিবার তোমাদের হারাতেই হবে লাজংকে। তবে রানার্স হলে আগামী বছর এ এফ সি কাপে খেলার সুযোগ পাওয়া যেতে পারে।’ 
বৃহস্পতিবারও হাওড়া স্টেডিয়ামে অনুশীলন করবে ইস্ট বেঙ্গল। শুক্রবার শিলং রওনা হচ্ছে লাল-হলুদ। এবার আই লিগে চ্যাম্পিয়নশিপের দৌড় থেকে ইস্ট বেঙ্গল ছিটকে যাওয়া প্রসঙ্গে মরগ্যান কিছু বলতে রাজি হননি। তিনি বলেন, ‘আগে কী হয়েছে সেই প্রসঙ্গে আমি কোনও মন্তব্য করব না। লাজং ম্যাচের যে ফল হবে সেই ব্যাপারে আমি বলতে পারি।’ 
ইস্ট বেঙ্গলে বেশি বয়স্ক ফুটবলারের তত্ত্ব একেবারেই উড়িয়ে দিয়েছেন মরগ্যান। বললেন, ‘ইস্ট বেঙ্গল যথেষ্ট ভালো দল। বয়সটা বড় কথা নয়, ফিটনেসই হল আসল। চোট-আঘাত সমস্যা বিশ্বের সব দলেরই রয়েছে। আমাদের এসব নিয়েই চলতে হবে।’ ফেডারেশন কাপকে ‘পাখির চোখ’ করেছেন মরগ্যান। ইস্ট বেঙ্গলকে অতীতে দু’বার ফেড কাপ চ্যাম্পিয়ন করা ব্রিটিশ কোচ বললেন, ‘ফেডারেশন কাপ শুরু হবে ৩০ এপ্রিল। ফাইনাল ২১ মে। ফলে হাতে সময় রয়েছে। তার মধ্যে দলটাকে গুছিয়ে নিতে পারব। আশা করছি ফেডারেশন কাপে ভালো ফল করব।’
এবার ফেডারেশন কাপ চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফরম্যাটে হচ্ছে। আই লিগের টেবলে পজিশন অনুযায়ী সেরা আটটি দল নিজেদের মধ্যে দুটি করে ম্যাচ খেলবে হোম ও অ্যাওয়ে ভিত্তিতে। সেই দুটি ম্যাচের ভিত্তিতে পিছিয়ে থাকা দল ছিটকে যাবে। সেমি-ফাইনাল হবে হোম ও অ্যাওয়ে ভিত্তিতে। অর্থাৎ আই লিগে অবনমন হয়ে যাওয়া দলের ফেড কাপ খেলা হচ্ছে না। সেক্ষেত্রে বোধহয় লাজংয়ের ফেড কাপ খেলা হবে না। ফেডারেশন কাপের ম্যাচ ভেন্যু ও তারিখ এখনও এ আই এফ এফ প্রকাশ করেনি। তবে ফরম্যাট তৈরি। যেমন ফেডারেশন কাপে আই লিগে চ্যাম্পিয়ন বেঙ্গালুরু এফ সি খেলবে আই লিগে আট নম্বরে শেষ করা দলের বিরুদ্ধে। রানার্স দল খেলবে সাত নম্বরে থাকা দলের বিরুদ্ধে। তৃতীয় স্থানে শেষ করা দল খেলবে ছ’নম্বর দলের বিরুদ্ধে। চার নম্বরে থাকা দল খেলবে পঞ্চম স্থানে থাকা দলের বিরুদ্ধে। তারপর আটটি ম্যাচের মধ্যে সেরা চারটি দল একে-অপরের বিরুদ্ধে সেমি-ফাইনাল খেলবে হোম ও অ্যাওয়ে ভিত্তিতে। অর্থাৎ এবার ফেডারেশন কাপে লড়াইটা বেশ কঠিন। তাসত্ত্বেও ইস্ট বেঙ্গল টিম নিয়ে আশাবাদী মরগ্যান।

No comments:

Post a Comment